সর্বশেষ লেখাসমূহ:
লক্ষ্মীপুর জেলা সাহিত্য সংসদের ২৩তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী সাহিত্য সম্মেলন ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সেলিনা হোসেন : সাহিত্য চর্চার মাধ্যমে তরুণ সমাজ আলোকিত হবে

লক্ষ্মীপুর জেলা সাহিত্য সংসদের ২৩তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী সাহিত্য সম্মেলন ও সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে সেলিনা হোসেন : সাহিত্য চর্চার মাধ্যমে তরুণ সমাজ আলোকিত হবে

Print Friendly, PDF & Email

তুষারধারা ডেস্ক:

বাংলা একাডেমি সভাপতি দেশবরেণ্য কথাসাহিত্যিক সেলিনা হোসেন বলেছেন, সাহিত্য চর্চার মাধ্যমে তরুণ সমাজ আলোকিত হবে। লক্ষ্মীপুর জেলা সাহিত্য সংসদের মতো সাহিত্য সংগঠনের মাধ্যমে সাহিত্য সংস্কৃতি চর্চা বেগবান হবে। এর মাধ্যমে লক্ষ্মীপুরকে শান্তি ও সমৃদ্ধির জায়গায় নিয়ে যাওয়ার জন্যে তিনি আহবান জানান। তিনি লক্ষ্মীপুরবাসীকে আন্তরিক শুভেচ্ছা জানান। গত ১ এপ্রিল (শুক্রবার) লক্ষ্মীপুর জেলা সাহিত্য সংসদের ২৩তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী সাহিত্য সম্মেলন, সংবর্ধনা ও সম্মাননা প্রদান ২০২২ অনুষ্ঠানে সেলিনা হোসেন সংবর্ধিত অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

অপর সংবর্ধিত অতিথি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রো-ভাইস চ্যান্সেলর অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল তাঁর বক্তব্যে বলেন, সেলিনা হোসেন আমাদের অহংকার। তাঁকে সাহিত্য সংসদ সংবর্ধনা দিয়ে লক্ষ্মীপুরকে একটি গৌরবের জায়গায় নিয়ে এসেছে। তিনি বাংলা একাডেমি পুরস্কার, একুশে পদক এবং স্বাধীনতা পুরস্কারসহ বিভিন্ন পুরস্কার প্রাপ্ত বরেণ্য কথাসাহিত্যিক। তাঁর উপন্যাসে মনোজগতের পরিবর্তনের উপাত্ত রয়েছে।

সাহিত্য সংসদের সভাপতি ডা. মো. সালাহউদ্দিন শরীফের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন জেলা প্রশাসক মোঃ আনোয়ার হোছাইন আকন্দ। স্বাগত বক্তব্য দেন সাহিত্য সংসদের সাধারণ সম্পাদক গাজী গিয়াস উদ্দিন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বলেন, জীবিত সাহিত্যকদের মধ্যে সেলিনা হোসেন ছাড়া আর কেউ সাহিত্যে এতো বেশী স্বীকৃতি পেয়েছেন কিনা, আমরা জানি না। প্রকৌশলী আনোয়ার হোসেন খান (সেলিনা হোসেনের জীবন সঙ্গী) বলেন, আমাদের সন্তানদের অপসংস্কৃতি থেকে মুক্ত রাখতে হবে। আমাদের সংস্কৃতি হচ্ছে ভাষা ভিত্তিক।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ ইমরান হোসেন। আলোচনায় অংশ নেন লক্ষ্মীপুর সরকারী কলেজের অধ্যাপক খন্দকার ইউসুফ হোসেন, জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান ফরিদা ইয়াসমিন লিকা, সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের জেলা সভাপতি জাকির হোসেন ভূঁইয়া আজাদ, সেজুঁতি ইনস্টিটিউশনের প্রতিষ্ঠাতা এডভোকেট মুরাদ আল হাসান চৌধুরী, সাহিত্য সংসদের সিনিয়র সহ-সভাপতি ও অনুরাগ সংগীত একাডেমি অধ্যক্ষ মাহবুবুল বাসার এবং স্বাধীনতা শিক্ষক পরিষদের জেলা সভাপতি মাহবুবুর রশীদ চৌধুরী। অনুষ্ঠানে উদ্বোধনী বৃন্দ আবৃত্তি পরিবেশন করে সেজুঁতি ইনস্টিটিউশন আবৃত্তি দল।

অনুষ্ঠানে সংবর্ধিত অতিথি সেলিনা হোসেন ও ড. মাকসুদ কামালকে সম্মাননা স্মারক প্রদান করা হয়। লক্ষ্মীপুর জেলা সাহিত্য সংসদ সম্মাননা ২০২২ পেয়েছেন কবি আরিফ মঈনুদ্দীন ও কবি রীনা তালুকদার। বাংলা আওয়াজ লেখক সম্মাননা ২০২২ পেয়েছেন লেখক গবেষক ফখরুল ইসলাম ও কবি জামিল জাহাঙ্গীর। জেলা বর্ষসেরা কবি সম্মাননা ২০২২ পেয়েছেন কবি রাজু হাসান। অনুষ্ঠান উপস্থাপনায় ছিলেন লজেসাস সহ-সভাপতি মোশাররফ হোসেন চৌধুরী ও সেজুঁতি ইনস্টিটিউশনের কর্মকর্তা হোসনে আরা কানন। সংগীত পরিবেশন করেন সংগীত শিল্পী এন্টি মনি মজুমদার। অনুষ্ঠানে সাহিত্য কুইজ প্রতিযোগিতায় বিজয়ী ৩০ জন শিক্ষার্থীর মাঝে পুরস্কার বিতরণ করা হয়।

আরও পড়ুতে ক্লিক করুন

বাংলা সাহিত্য লেখক অভিধান

তুষারধারা’র আগামী সংখ্যার জন্য লেখা আহবান

লক্ষ্মীপুর জেলা সাহিত্য সংসদের সাহিত্য অনুষ্ঠান এবং কবি লেখক সম্মাননা প্রদান

লক্ষ্মীপুরে সাহিত্য উৎসব ।। পুরস্কৃত হচ্ছেন মাহমুদ কামাল, জাহিদুল গণি চৌধুরী, ইয়াসমিন সুলতানা ও আমিনুল ইসলাম মামুন

ভিডিও দেখতেক্লিককরুন

সোমনুর মনির কোনালের বক্তব্যে মধুমতি চলচ্চিত্র ও উপন্যাসের লেখিকা রাবেয়া খাতুন

করোনায় নতুন এক মেডিসিন নিয়ে এলেন আমিনুল ইসলাম মামুন

ঘুড়ির মাঠে আয় রে সবে

আপন ঘর

সর্বমোট পঠিত: 87

সর্বশেষ সম্পাদনা: এপ্রিল ৫, ২০২২ at ৩:৪৪ পূর্বাহ্ণ

প্রিজম আইটি: ওয়েবসাইট ডিজাইন এবং ডেভেলপমেন্ট-এর জন্য যোগাযোগ করুন- ০১৬৭৩৬৩৬৭৫৭